আপিলে বৈধতা ফিরে পেলেন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী সেলিম

মোঃ রাকিব, জেলা প্রতিনিধি, কিশোরগঞ্জঃ

 

জেলা পরিষদের ঠিকাদারী লাইসেন্স সময়মতো হেন্ডওভার না দেয়ার অভিযোগে আদালতে দায়ের করা আপিলে মনোনয়নের বৈধতা ফিরে পেলেন কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা সেলিম।

 

মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) বিকালে বিচারপতি মো.রুহুল কুদ্দুস ও বিচারপতি এস.এম মনিরুজ্জামানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোট ডিভিশনের দ্বৈত বেঞ্চ শুনানি শেষে এ রায় দেন।

 

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, মো. সেলিম কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। ১৮ সেপ্টেম্বর মননোয়নপত্র যাচাই-বাচাই কালে জেলা পরিষদের ঠিকাদারী লাইসেন্স সময়মতো হেন্ডওভার না দেয়ার কারণ উল্লেখ করে রিটানিং অফিসার ও আপিলেট অথারিটি মো. সেলিমের চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেন। উক্ত মনোনয়নপত্র বাতিলের আদেশ চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট পিটিশন দায়ের করেন সেলিম। এরপর মঙ্গলবার বিকালে শুনানি শেষে আদালত কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. সেলিমের মনোনয়নপত্র বাতিল করে রিটানিং অফিসার ও আপিলেট অথরিটির দেওয়া আদেশ কেন বে-আইনি ও অবৈধ ঘোষণা করা হবে না সে মর্মে বিবাদীর প্রতি রুল জারি করেন। একই সঙ্গে ১৮ ও ২২ সেপ্টেম্বর তার মনোনয়নপত্র বাতিলের আদেশ স্থগিত করে কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদ নির্বাচনের রিটানিং অফিসারকে রিট পিটিশনকারীরর মনোনয়পত্র গ্রহণ করে প্রতীক বরাদ্দের নির্দেশনা দেন।

 

এ ব্যাপারে জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ আশরাফুল আলম জানান, চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. সেলিম জেলা পরিষদের ঠিকাদারী লাইসেন্স সময়মতো হেন্ডওভার না দেয়ায় তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। উচ্চ আদালতে তিনি আপিল করে প্রার্থীতা ফিরে পেয়েছেন। আদালতের রায়ের কপি জেলা নির্বাচন কার্যালয় ও রিটানিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে পৌঁছেছে। তাকে প্রতীকও দেয়া হয়েছে।

 

এদিকে মো. সেলিম বলেন, তিনি প্রার্থীতা ফিরে পেতে উচ্চ আদালতে আপিল করেছেন। আদালত তার প্রার্থীতা বহাল রেখেছেন। তাকে ইতোমধ্যে  হেলিকপ্টার প্রতীক দেয়া হয়েছে।

 

মো. সেলিমের প্রার্থীতা ফিরে পাওয়ায় কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে পাঁচজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্য পদে ১২ জন এবং সাধারণ আসনের সদস্য পদে ৩৫ জন প্রার্থী নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন।

 

চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা হলেন, আওয়ামী লীগ প্রার্থী জেলা পরিষদ প্রশাসক বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট মো. জিল্লুর রহমান (চশমা), জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট মো. আশরাফ উদ্দিন রেনু (আনারস), হামিদুল আলম চৌধুরী নিউটন (ঘোড়া), আশিক জামান এলিন (মোটর সাইকেল) ও মো. সেলিম (হেলিকপ্টার)।

 

অন্যদিকে একক প্রার্থী হওয়ায় সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্য পদে একজন এবং সাধারণ আসনের সদস্য পদে দুইজন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

 

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিতরা হলেন, ২নং ওয়ার্ডে (নিকলী ও বাজিতপুর) সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্য পদে ইয়াছমীন আক্তার, ৫নং ওয়ার্ডে (করিমগঞ্জ) সাধারণ আসনের সদস্য পদে মো. সোহাগ মিয়া এবং ৮নং ওয়ার্ডে (মিঠামইন) সাধারণ আসনের সদস্য পদে রইছ উদ্দিন আহমেদ।

 

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

বিষয়: * কিশোরগঞ্জ * স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা সেলিম
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ