ঘোড়াঘাটে স্ত্রীর সাথে অভিমানে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবকের আত্মহত্যা

 

 

মনোয়ার বাবু, ঘোড়াঘাট (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ

 

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করছে সাজু মিয়া (২৪) নামের এক যুবক। অভিমান করে সে এই ঘটনা ঘটাতে পারে বলে তার পরিবার জানিয়েছেন।

 

শুক্রবার দুপুরে তার নিজ শয়ন ঘরের তীরের সাথে ওড়না দিয়ে গলায় ফাঁস দেওয়া ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত সাজু মিয়া উপজেলার ৩নং সিংড়া ইউপির মগলিশপুর মধ্যপাড়া গ্রামের মোঃ আলতাব আলীর ছেলে।

 

সাজু মিয়ার বড় ভাই রাজু মিয়া জানান,তার ছোট ভাই আনুমানিক পনের মাস পূর্বে একই উপজেলার বুলাকীপুর ইউপির শিমা আক্তার এর সাথে বিবাহ হয়। বিয়ের পর থেকে তারা পৃথক ভাবে ঘর সংসার করতে থাকে। ছোট ভাই ও তার স্ত্রীর মধ্যে সাংসারিক জীবনে বনিবনা না হওয়ায় ৪ মে শিমা রাগা-রাগি করে তার বাবার বাসায় চলে যায়। ২০ তারিখ শুক্রবার অনুমান বেলা ১২:৫০ ঘটিকায় তার ছোট ভাই সাজু মিয়া শ্বশুর বাড়িতে মোবাইল ফোনে কথা বলে। এসময় তিনি আরও জানান, শুক্রবার হওয়ায় জুম্মার নামাজ শেষে বাড়িতে ফিরে এসে দেখেন তার ছোট ভাইয়ের ঘড়ের দরজা ভিতর থেকে আটকানো। অনেক ডাকাডাকি এবং দরজায় ধাক্কাধাক্কি করার পর কোন সাড়া শব্দ না পাওয়ায়  সকলের সহযোগীতায় দরজা খুলে ভিতরে প্রবেশ করে দেখেন তার ছোট ভাই সাজু মিয়া শয়ন ঘড়ের তীরের সাথে ওড়না দ্বারা গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করে ঝুলন্ত অবস্থায় আছে।পরে থানা পুলিশকে খবর দেওয়ার পর পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

 

ঘোড়াঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ আবু হাসান কবির,পিপিএম(সেবা) জানান,আলামতসহ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে এবং একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করা হয়েছে। তিনি আরও জানান, মৃত্যুর সঠিক কারণ নির্ণয় করার জন্য আজ ২১ মে লাশ মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে এবং মৃত্যুর কারণ নির্ণয় করার পর আইন অনুযায়ী যথাযথ ব্যবস্তা নেওয়া হবে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * অভিমান * ঘোড়াঘাট
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ