“পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন না হলে জুম্ম জনগণের অস্তিত্ব বিলীন হবে”

স্টাফ রিপোর্টার রাঙ্গামাটি :
পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন না হলে জুম্ম জনগণের অস্তিত্ব বিলীন হবে বলে মন্তব্য করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের চেয়ারম্যান ও জনসংহতি সমিতির সভাপতি  জ্যোতিরিন্দ্র বোধিপ্রিয় (সন্তু) লারমা। শুক্রবার (২১ জুন) রাঙাদ্বীপ রাজবাড়ী এলাকায় ১৯০০ সালে শাসন বিধি বহাল রাখার দাবিতে সিএইচটি হেডম্যান নেটওয়ার্ক এর আয়োজনে এবং হেডম্যান  সম্মেলন কক্ষে হেডম্যান নেটওয়ার্ক সম্মেলনে কংজরী চৌধুরীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে এসব  বক্তব্য পেশ  করেন।
তিনি আরো বলেন, জনসংহতি সমিতি সেই  চুক্তি বাস্তবায়নের পক্ষে জানান। এখানে অন্যান্য দল আওয়ামী লীগের কি ভুমিকা ছিলো,বিএনপির কি ভূমিকা ছিলো, দলগতভাবে আওয়ামী লীগের ভুমিকা ছিলো। চুক্তি বাস্তবায়নে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি এবং  অন্যান্য দলের হেডম্যান- কার্বারিরা সহযোগিতা করেন না কেন। চুক্তির ব্যাপারে ভীত সন্তুষ্ট কেন। তিনি চুক্তিতে ১৯০০ সনে শাসন বিধির কথাও রয়েছে বলে উপস্থাপন তুলে ধরে ।
এর পর  আরো বলেন,চুক্তি বাস্তবায়নে আপনার অস্তিত্ব রয়েছে। চুক্তি  বাস্তবায়নে কথা বললে  ওসি, ইউএনও, জোন কমান্ডার,  ডিসিরা এই বলবে,করবে  বলে এতো  ভয়, ভীত কেন?.এই চুক্তি বাস্তবায়ন না হলে জুম্ম জনগণের অস্তিত্ব বিলীন হয়ে যাবে বলে সকলকে জানান। সম্মেলনে  এছাড়াও উদ্বোধক ও প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মং সার্কেল রাজা সাচিং প্রু চৌধুরী,  চাকমা সার্কেল চীফ রাজা ব্যারিস্টার দেবাশীষ রায়।
এছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদ সদস্য সুবীর কুমার চাকমা, সাবেক চেয়ারম্যান গৌতম দেওয়ান,  চিং কিউ রোয়াজা,জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সাবেক সদস্য নিরুপা দেওয়ান,নারী হেডম্যান কার্বারি নেটওয়ার্কের সভাপতি জয়া ত্রিপুরা এবং স্বাগত বক্তব্য রাখেন সিএইচটি হেডম্যান নেটওয়ার্কের সাধারণ সম্পাদক শান্তি বিজয় চাকমা। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন তিন পার্বত্য জেলার প্রায় হেডম্যান কার্বারিবৃন্দ সহ সমাজ সেবকরা। সম্মেলনে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট ১ টি নতুন কার্যকরি কমিটি গঠন করা হয়েছে।
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

বিষয়: * পার্বত্য চট্টগ্রাম * রাঙ্গামাটি
সর্বশেষ সংবাদ