চোখ উঠা বা ভাইরাল কনজাংটিভাইটিস রোগের চিকিৎসা

এম জি রাব্বুল ইসলাম পাপ্পু, কুড়িগ্রামঃ

 

গত বেশ কিছুদিন ধরে বাংলাদেশের প্রায় অনেক জেলায় একটি মহামারীর মত দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে চোখ ওঠা বা ডাক্তারী ভাষায় ভাইরাল কনজাংটিভাইটিস রোগটি। এমতাবস্থায় দেশের বড় বড় চক্ষু বিশেষজ্ঞগণ বেশ কিছু পরামর্শ মেনে চলার অনুরোধ জানিয়েছেন।

 

এই সমস্যাগুলো দেখা দিলে যেসব নিয়ম অনুসরণ করতে হবে সেগুলো হলঃ চোখ লাল হয়ে গেলে জনসমাগম এড়িয়ে চলুন, চোখে হাত লাগাবেন না, চোখে পানি দিবেন না, উজ্জ্বল আলো কিংবা সূর্যালোকে কালো চশমা কিংবা সানগ্লাস ব্যবহার করুন, চোখের পাতা ফুলে গেলে শুকনো গরম সেঁক দিতে পারেন, ব্যবহার্য জিনিসপত্র যেমন কাপড়চোপড়, গ্লাস, প্লেট, গরম পানি দিয়ে ধৌত করুন এবং আলাদা রাখুন, কোনো অবস্থাতেই ফার্মেসী বা ঔষধের দোকান থেকে নিজে নিজে ঔষধ কিনে ব্যবহার শুরু করবেন না।

 

চোখ অত্যন্ত সংবেদনশীল অঙ্গ তাই অসাবধানতার ফলে চোখের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। সাধারণত জটিল কোনো উপসর্গ না থাকলে ৭-১০দিনের মধ্যেই এটি সেরে যায়। কখন চিকিৎসকের শরণাপন্ন হবেন? চোখ থেকে অনবরত পানি ঝরতে থাকলে, কেতুরের জন্য চোখ খুলতে অসুবিধা হলে, চোখে পুর্বের চাইতে ঝাপসা দেখলে, এবং চোখে ব্যথা শুরু হলে ডাক্তারের শরণাপন্ন হন।

 

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * চোখ ওঠা
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ