ঝালকাঠির কাঠালিয়া বাজারে অগ্নিকাণ্ডে কোটি টাকার ক্ষয়-ক্ষ‌তি

 

 

মো: মোস্তা‌ফিজুর রহমান রিপন, জেলা প্রতি‌নি‌ধি (ঝালকা‌ঠি):

 

ঝালকাঠির কাঠালিয়ার আমুয়া বন্দর বাজারে অগ্নিকাণ্ডে ৭টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে গেছে। এতে ব্যবসায়ীদের প্রায় ১ কোটি টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে। শুক্রবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে রুটির দোকান থেকে এ আগুনের সূত্রপাত ঘটে।

জানা গেছে, বাজারের নৈশ প্রহরীরা সিদ্দিকুর রহমানের রুটির দোকানে আগুন জ্বলতে দেখে ডাক চিৎকার ও মাইকিং করে স্থানীয়রা প্রথমে আগুন নিয়ন্ত্রণে আানার চেষ্টা করে। মূহুর্তের মধ্যে আগুন আশপাশের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে কাঠালিয়া ও বরগুনা জেলার বামনা উপজেলার ফায়াস সার্ভিসের ২টি ইউনিট ঘটনাস্থলে এসে দুই ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ততক্ষণে মো. রুসুল হাওলাদারের মুদি মনোহরীর দোকান, শাবুর পোল্টি ফিডের দোকান, ফোরকানের জুতার দোকান, আফজালের মুদির কোন, সামসুর হোটেল ও আল আমিনের মুদির দোকানসহ ৭টি দোকান পুড়ে যায়। স্থানীয়দের মতে, ১ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এ ঘটনায় ঘটনাস্থল পরির্দশন করেছেন কাঠালিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মিজানুর রহমান ও কাঠা‌লিয়া থানার অফিসার ইনর্চাজ মো. মুরাদ আলী।

কাঠালিয়ার ফায়ার সার্ভিসের ষ্টেশন অফিসার মোঃ শহিদুল ইসলাম জানান, আমুয়া বাজারে আগুন লাগার খবর পাওয়া মাত্র মুহূর্তের মধ্যে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে বামনার ফায়ার সার্ভিস ইউনিটসহ আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ তদন্ত করে বলা যাবে।

আমুয়া বন্দর বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মো. জাকির হোসেন গোলদার বলেন, রাত ৪টার দিকে নৈশ প্রহরীর চিৎকারে আমরা বাজারে আসি। পরে মাইকিং করে এলাকাবাসীকে অবহিত করি। কাঠালিয়া ও বামনা ফায়ার সার্ভিসকে জানালে তারা তাৎক্ষনিক এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময়ের মধ্যে বাজারের ৭টি দোকান আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এতে ব্যবসায়ীদের প্রায় ১ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * কাঠালিয়া বাজার * কোটি টাকা * কোটি টাকার ক্ষয় * ক্ষতি * ঝালকাঠি
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ