অনৈতিক সম্পর্কের অভিযোগে খদ্দেরসহ স্বামী-স্ত্রী গ্রেপ্তার

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধিঃ রবিবার (২৭ মার্চ) বেলা এগারটার দিকে শহরের চাঁদনগর এলাকায় ডাঃ নজরুল ইসলামের বাসা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার কর্মচারী ঠাকুরগাঁয়ের রুহিয়া উপজেলার সাইফুল ইসলাম (৩৮) ও তার স্ত্রী  শম্পা বেগম ( ৩২)  এবং খদ্দের চট্টগ্রামের মীরসরাই উপজেলার মধ্যমাইন এলাকার প্রদীপ বড়ুয়ার ছেলে আপন বড়ুয়া (২৩)।
তবে আপন বড়ুয়া বলেন, চাকুরির জন্য সাইফুল ইসলামকে ৫ লাখ টাকা দিয়েছিলাম সেই টাকা ফেরত দিবে বলে তিনি এখানে আসতে বলেছিলেন। তাই আমি  এখানে এসেছি কোনো অসামাজিক কাজ করিনি।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, রেলওয়ে কারখানায় চাকুরির সুবাদে সাইফুল ইসলাম ও তার স্ত্রী উল্লেখিত বাসায় ভাড়ায় থাকতেন। চাকরির পাশাপাশি দীর্ঘদিন থেকে তিনি তার স্ত্রীকে দিয়ে অসামাজিক কাজ করাতেন। ইতোপূর্বেও কয়েকবার ধরা খেয়েছে। অনেককে ফাঁসিয়ে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগও রয়েছে।
এই দম্পতির একটি ৭ বছর বয়সী ছেলে ও ২ বছরের একটি মেয়ে আছে। সাথে মহিলার ছোট বোনকে তার স্বামী হত্যা করায় বোনের দুগ্ধপোষ্য একটি মেয়ে (১ বছর) কেও নিয়ে এসে লালন পালন করছে। এমতাবস্থায় এহেন জঘন্য কাজে জড়িত থাকায় পরিবারটিকে নিয়ে এলাকায় ছি ছি রব পড়েছে।
ঘটনার দিন আপন বড়ুয়ার সাথে আসামাজিক কাজ করা অবস্থাতে হাতে নাতে ধরে ফেলে এলাকার লোকজন। তাদের দুইজনকে ঘরে তালাবদ্ধ করে রাখেন তারা। পরে খবর পেয়ে পুলিশ তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসেন।
সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসনাত খান বলেন, স্থানীয়দের অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাদের আটক করা হয়েছে। আটক তিনজনকেই আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * অনৈতিক সম্পর্ক * নীলফামারী * সৈয়দপুর * সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানা * স্বামী-স্ত্রী গ্রেপ্তার
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ