সুনামগঞ্জের এলংজুরী কীর্তন অনুষ্ঠানে বখাটেদের ইভটিজিং ও হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের

দিরাই (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার চরনারচর ইউনিয়নের এলংজুরী-সতানন্দপুর পঞ্চগ্রাম ভেনাত কীর্তন অনুষ্ঠানে গিয়ে বখাটে সন্ত্রাসী সুজন হাজরা ভূট্রো, সন্ত্রাসী হৃদয় হোসেন, সন্ত্রাসী সন্দীপ দাস গংরা এক কিশোরীকে ইভটিজিং করার প্রতিবাদ করায় এলংজুরী গ্রামের এক নিরীহ ব্যক্তির উপর হামলার ঘটনায় ৬ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের।
এ ঘটনায় এলংজুরী-সতানন্দপুর পঞ্চগ্রাম ভেনাত কীর্তন কমিটির পক্ষে কমিটির সাধারন সম্পাদক রুপক তালুকদার বাদি হয়ে ১৮ই মার্চ লৌলারচর গ্রামের কামেশ্বর হাজরার ছেলে বখাটে ইভটিজার সুজন হাজরা ওরফে ভুট্টু (২২) কে প্রধান আসামী করে মোট ৬ জনের নাম উল্লেখ করে দিরাই থানায় মামলাটি দায়ের করেন।
মামলার বাকি আসামীরা হলেন, একই ইউনিয়নের হাসনাবাদ গ্রামের মো.আবুল মিয়ার ছেলে বখাটে সন্ত্রাসী হৃদয় হোসেন(২১),তার চাচাতো ভাই সামছু মিয়ার ছেলে নওশেদ মিয়া (২১), শ্যামারচর গ্রামের নিরদ দাসের ছেলে সন্দীপ দাস (২২), অরুণ দাসের ছেলে অনিত দাস (২২) ও পেরুয়া গ্রামের মৃত নির্মল রায়ের ছেলে নিতু রায়(২৩)। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ১৫ই মার্চ রাতে দু’দিনব্যাপী এলংজুরী ভেনাত ঠাকুরের কীর্তন তলায় হরিনাম সংকীর্তন অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানের প্রথমদিনে রাত আনুমানিক ৩টায় কীর্তনস্থলে বখাটে ইভটিজার সুজন হাজরা ওরফে ভুট্টু ও হৃদয় হোসেনের নেতৃত্বে নামাংঙ্কিত বখাটেরা উপস্থিত হয়ে মেয়েদের অকথ্য ভাষায় কু’কথা বলে শ্লীলতাহানি(উত্যক্ত) করার চেষ্টা করেন।
এ সময় উপস্থিত ভক্তবৃন্দরা তাদের বুঝিয়ে অনুষ্ঠানস্থল থেকে চলে যাওয়ার অনুরোধ করলে প্রধান ও ২নং আসামী সুজন হাজরা ও হদয় হোসেন গংরা এ সময় মামলার বাদিসহ উপস্থিত লোকজনের কাউকে রাস্তাঘাটে পাইলে মেরে পঙ্গু করে দেয়া হবে হুমকি দিয়ে আসে। এই ইভটিজিংয়ের ঘটনাকে কেন্দ্র করে গত ১৭ই মার্চ রাত আনুমানিক ৮টায় বাদির ছোটভাই ঝলক তালুকদার পেরুয়া চকবাজারের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে শ্যামারচর সড়ক দিয়ে পেরুয়া ত্রিমুখীতে মোটর সাইকেল যোগে আসামাত্র ১নং আসামী ও ২নং আসামীর নেতৃত্বে নামাংঙ্কিত সন্ত্রাসীরা দাড়াঁলো অস্ত্র নিয়ে ওৎ পেতে থাকা অবস্থায় মোটর সাইকেলের গতিরোধ করে তাকে মোটর সাইকেল হতে টেনেহেছড়ে মাঠিতে ফেলে হামলা চালিয়ে বেদড়ক কিল, ঘুষি মেরে তাকে গুরুতর আহত করে। তার চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে তাকে উদ্ধার করে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসাসেবা দেয়া হয়।
এ ব্যাপারে মামলার বাদি এলংজুরী-সতানন্দপুর পঞ্চগ্রাম ভেনাত কীর্তন কমিটির পক্ষে কমিটির সাধারন সম্পাদক রুপক তালুকদার বলেন,কোন ধর্মীয় অনুষ্ঠানে গিয়ে মেয়ের সাথে শ্লীলতাহানির চেষ্টা খুবই দুঃখজনক। এর প্রতিবাদের অংশ হিসেবে আসামীদ্বয় আমার ভাইকে রাস্তায় একা পেয়ে তার উপর হামলা করে তাকে রক্তাক্ত করেছে । তিনি সকল আসামীদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে কঠোর শাস্তি প্রদানের জন্য পুলিশ সুপারের নিকট দাবী জানান।
এ ব্যাপারে দিরাই থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আজিজুর রহমান মামলা দায়েরের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পুলিশ আসামীদের ধরতে অভিযান পরিচালনা করছে।
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * ইভটিজিং * দিরাই উপজেলা * মামলা * সুনামগঞ্জ
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ