একটি অসাধু চক্র নিত্য পণ্যের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করছে- নানক 

দিরাই (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক সুনামগঞ্জে এক সভায় বলেছেন, সুযোগসন্ধানীরা নিত্যপণ্যের কৃত্তিম সংকট সৃষ্টি করেছে। এই সুযোগ গ্রহণকারী আর হুজুগ সৃষ্টিকারী সবাই একই দোষে দোষী। এদের সম্পর্কে সাবধান থাকতে হবে। এই বাংলাদেশে শেখ হাসিনা মাতৃত্ব ভাতা, বিধবাভাতা, বয়স্কভাতা দিচ্ছেন। ত্রিশ লাখ মানুষকে পাকাঘর বানিয়ে দিয়ে বসবাসের সুযোগ করে দিয়েছেন। সরকারের এইসব অর্জনকে ম্লান করতে নিত্যপণের কৃত্রিম সংক সৃষ্টি করে দাম বাড়ানো হয়েছে।

একই সভায় দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ বলেছেন, দুই দুইটা বছর বাংলাদেশসহ সারাবিশ্ব করোনায় বিপর্যন্ত ছিল। রাষ্ট্রীয় কার্যক্রম, ব্যবসা-বাণিজ্য ঠিকমত করতে পারে নাই। যে কারণে এখনও বিশ্ববাজার স্থিতিশীল অবস্থায় নেই। পাশাপাশি রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে যে যুদ্ধ চলছে যুদ্ধের প্রভাবেও বিশ্ববাজার অস্থিতিশীল। এর ঢেউ লেগেছে আমাদের দেশে।

তিনি আরো বলেন, মানুষের মধ্যে  একটা নেতিবাচক স্বভাব রয়েছে। কিছুসংখ্যক ব্যবসায়ী সুযোগের অপেক্ষায় থাকে। তারা অতিরিক্ত মুনাফার জন্য জিনিসপত্রের দাম বাড়িয়ে দেয়। যে কারণে আমাদের নিম্ন ও মধ্য আয়ের মানুষ কষ্টের শিকার হন। এ ব্যাপারে আমাদের, বিশেষ করে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নজরদারি করতে হবে। কেউ মজুদদারি করলে, অযৌক্তিক নিত্যপণ্যের দাম বাড়ালে প্রশাসনকে জানাবেন। তারা সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নিবে। সরকারকে বিপদে  ফেলেবে, এমন কর্মকান্ড বরদাশত করা হবে না। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে বাজার মনিটরিং শুরু হয়েছে। যারা মজুদ করে তেলের দাম বাড়িয়েছে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পাশাপাশি আগামীতে ৫০ লাখ নিম্ন আয়ের পরিবারকে ১০ টাকা কেজি দরে। চাল দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

বাংলাদেশের অর্থনীতিতে পাড়ায় জিনিসপত্রের দাম বেড়েছে।

নেতৃবৃন্দ বলেন আগামী জুন মাসের মধ্যেই জেলা সম্মেলন হবে এর আগে ইউনিয়ন ও উপজেলার সম্মেলন করা হবে। ঢাকা বসে কমিটি করা চলবে

 না।

রবিবার দুপুরে সুনামগঞ্জ জেলা শিল্পকলা একাডেমির হাছনরাজা মিলনায়তনে আয়োজিত জেলা আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি সভায় তারা এসব কথা বলেন।

জেলা আওয়ামী  লীগের সভাপতি আলহাজ মতিউর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এনামুল কবির ইমনের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথির অতিথির  বক্তৃতা করেন, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য নূরুল ইসলাম নাহিদ বিশেষঅতিথিরবক্তব্যরাখেন, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আজিজুস সামাদ ডন, সংসদ সদস্য মুহিবুর রহমান মানিক, মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, শামীমা আক্তার খানম প্রমুখ।

আরো উপস্থিত ছিলেন সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি এডভোকেট আফতাব উদ্দিন, নোমান বখত পলিন, সৈয়দ আবুল কাশেম, যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আনোয়ারুজজামান চৌধুরী, তাহিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান করুনা সিন্ধ চৌধুরী বাবুল, যুগ্ম সম্পাদক এডভোকেট হায়দার চৌধুরী লিটন, সাংগঠনিক সম্পাদক সিরাজুর রহমান সিরাজ, শংকর চন্দ্র দাস, সুনামগঞ্জ সদর আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব আবুল কালাম, শামীম চৌধুরী,তাহিরপুর উপজেলা সাধারণ সম্পাদক অমল কর, সিতেষ তালুকদার মঞ্জু, আসাদুজ্জামান সেন্টু, এডভোকেট আজাদুল ইসলাম রতন, ইশতিয়াক শামীম, এডভোকেট কল্লোল তালুকদার জামালগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল আল আজাদ প্রমুখ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
বিষয়: * অসাধু * চক্র * জাহাঙ্গীর কবির নানক * নানক * নিত্য পণ্যে * সুনামগঞ্জ
লাইভ রেডিও
সর্বশেষ সংবাদ